সোমবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭:১২ পূর্বাহ্ন

ঈশ্বরদীতে মুক্তিযোদ্ধাদের অস্থায়ী স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্রের উদ্বোধন

ঈশ্বরদীতে মুক্তিযোদ্ধাদের অস্থায়ী স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্রের উদ্বোধন

ঈশ্বরদী (পাবনা) প্রতিনিধি :
করোনাকালিন সময়ে অসহায় বীরমুক্তিযোদ্ধা ও অতি দরিদ্রদের স্বাস্থ্য সেবা প্রদানের লক্ষ্যে ঈশ্বরদী মুক্তিযোদ্ধা ভবণ কমপ্লেক্সে অস্থায়ী স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্রের উদ্বোধন করা হয়েছে। গত শুক্রবার সকালে ভারতীয় প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত বীরমুক্তিযোদ্ধের উদ্যোগে ও পাকশী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এনামুল হক বিশ্বাসসহ স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধাদের আর্থিক সহযোগিতা এবং নেপ্র-জে এম ই কর্পোরেট কোম্পানির পৃষ্টপোষকতায় এই অস্থায়ী স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্রের উদ্বোধন করা হয়।

 

বীরমুক্তিযোদ্ধা আমিনুর রহমান দাদুর সভাপতিত্বে কর্মসূচিতে শোকের মাসে ১৫ আগষ্ট স্বপরিবারে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলায় এবং মুক্তিযুদ্ধে নিহতদের স্মরণে শ্রদ্ধা নিবেদন, শোক, জাতীয় ও মুক্তিযোদ্ধের পতাকা উত্তোলন এবং আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে ভারতীয় প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত মুক্তিযুদ্ধ চলাকালিন পাবনা জেলা ১ নং কোম্পানি কমান্ডার বীরমুক্তিযোদ্ধা এডভোকেট কাজী সদরুল হক সূধা, প্লাটুন কমান্ডার বীরমুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক বুদু, পাকশী ইউনিয়ন কমান্ডার বীরমুক্তিযোদ্ধা জাহাঙ্গীর আলম, বীরমুক্তিযোদ্ধা আইয়ুব আলী এবং ঈশ^রদী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাক্তার এফএ আসমা খান প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

 

স্বাস্থ্য কেন্দ্র থেকে করোনাকালিন সময়ে ঈশ্বরদীতে থাকা অসুস্থ্য বীরমুক্তিযোদ্ধাসহ অতি দরিদ্র জনগোষ্টিকে বিনামুল্যে অক্সিজেন গ্যাস সিলিন্ডার, মাক্স ও প্রয়োজনীয় ওষুধপত্র প্রদান করা হবে বলে সভায় জানানো হয়। প্রথম পর্যায়ে নেপ্র-জে এম ই কর্পোরেট কোম্পানির পক্ষ থেকে ৫ টি এবং পাকশী ইউপি চেয়ারম্যান এনামুলক হক বিশ্বাসসহ স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধাদের সহযোগিতায় আরো ৫ টি অক্সিজেন গ্যাস সিলিন্ডার মুক্তিযোদ্ধাদের গঠিত স্বাস্থ্য ক্যাম্পে প্রদান করা হয়েছে।

 

ভারতীয় প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত মুক্তিযুদ্ধ চলাকালিন পাবনা জেলা ১ নং কোম্পানি কমান্ডার বীরমুক্তিযোদ্ধা এডভোকেট কাজী সদরুল হক সূধা বক্তব্যকালে বলেন, করোনাকালিন সময় বাংলাদেশে এই প্রথম ঈশ্বরদীর বীরমুক্তি যোদ্ধারাই মানুষকে স্বাস্থ্য সেবা প্রদানের উদ্যোগ নিয়েছেন। আমরা ১৯৭১ সালে বঙ্গবন্ধুর ডাকে সাঁড়া দিয়ে জীবনবাজি রেখে যুদ্ধ করে বাঙ্গালী জাতিকে একটি স্বাধীন রাষ্ট্র উপহার দিয়েছি। এরপর আমরা বীরমুক্তিযোদ্ধারা জাতির জন্য আর কিছুই করেনি। তারপরও সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা বীরমুক্তি যোদ্ধাদের বেঁচে থাকার অবলম্বন হিসেবে মাসিক ভাতাস্বরুপ ২০ হাজার করে টাকা প্রদান করছেন। দিয়েছেন আশ্রয় কেন্দ্র। সর্বভাবে মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানিত করে যাচ্ছেন বর্তমান সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী। তাই সময় এসেছে বীরমুক্তিযোদ্ধা হিসেবে আমাদের আবারও জাতির পাশে দাঁড়ানোর। সেই প্রত্যয়েই করোনাকালিন সময়ে এই স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্র চালু করা হচ্ছে।  সভায় ভারতীয় প্রশিক্ষণ প্রাপ্ত অত্যাঞ্চলের প্রায় দেড় শতাধিক বীরমুক্তিযোদ্ধা উপস্থিত ছিলেন।

 

শেয়ার করুন .....




© 2018 allnewsagency.com      তত্ত্বাবধানে - মোহা: মনিকুল মশিহুর সজীব
Design & Developed BY ThemesBazar.Com