রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ০৮:৪৬ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
শিবগঞ্জের তর্তিপুরে মাঘী বান্নী গঙ্গাস্নান চাঁপাইনবাবগঞ্জে ৫১তম জাতীয় শীতকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতার সমাপ্তি এপেক্স ক্লাব অব গোবিন্দগঞ্জ এর উদ্যোগে এতিম মেয়ের বিবাহের জন্য নগদ আর্থিক সহায়তা প্রদান হযরত আল্লামা মুফতি মুজাহিদ উদ্দীন চৌধুরী দুবাগী  (রহ.) হুজুরের অবদান কখনো ভুলার নয়। ভোলাহাটে ইউনিয়ন পর্যায়ে এ্যাথলেটিকস প্রতিযোগিতা। ভোলাহাটে গ্রামবাসির হাতে ভূয়া র‌্যাব, পুলিশে সোর্পদ। প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চলেও চমকপ্রদ পদ্ধতিতে ইভিএম এর প্রচারণায় মাঠে নেমেছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা মো:দেলোয়ার হোসেন গোবিন্দগঞ্জে আওয়ামীলীগ সাধারন সম্পাদক মোকাদ্দেস আলী বাদু এর শীতার্তদের মাঝে উষ্ণ উপহার রাজশাহীতে প্রধানমন্ত্রী আগমন উপলক্ষে তাঁতী লীগের প্রচার মিছিল শিবগঞ্জে নার্স লাঞ্ছনার ঘটনায় সাবেক যুবলীগ কর্মীর বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ
ইতিহাসে প্রথম নারী রেফারি নিয়োগ দিলো ইতালিয়ান লিগ

ইতিহাসে প্রথম নারী রেফারি নিয়োগ দিলো ইতালিয়ান লিগ

নিউজ ডেস্ক :
আসছে মৌসুমে নতুন এক ইতিহাস গড়তে যাচ্ছে ইতালিয়ান ফুটবল। দেশটির ফুটবলের সর্বোচ্চ স্তর সিরি’আর ইতিহাসে কখনো ম্যাচের দায়িত্বে থাকেননি কোনো নারী। এবার প্রথমবারের মতো কোনো নারীকে রেফারি হিসেবে দায়িত্ব দিয়েছে সিরি’আ কর্তৃপক্ষ। আসছে মৌসুমেই দেশটির ফুটবলের সর্বোচ্চ স্তরে অভিষেক হচ্ছে প্রথম নারী রেফারি মারিয়া সোলে ফেররিয়েরি কাপুতির।

সিরি’আয় এমন দৃশ্য অভূতপূর্ব হলেও দেশটির কাপ প্রতিযোগিতায় ঠিকই নারী রেফারির অধীনে খেলা চলেছে। ইতালিয়ান কাপে চিত্তাদেলার বিপক্ষে সেই ম্যাচে খেলেছিল কাইয়েরি। সেই ম্যাচে দায়িত্ব পেয়েছিলেন কাপুতি।

৩১ বছর বয়সী এই রেফারি এবার ইতালির সর্বোচ্চ ফুটবল প্রতিযোগিতার রেফারিং পুলে জায়গা পেলেন। তাতেই তার কাজের পরিসরটা আরেকটু বিস্তৃত হলো।

২০০৭ সালে মাত্র ১৬ বছর বয়সে তিনি যোগ দিয়েছিলেন ইতালিয়ান রেফারি অ্যাসোসিয়েশনে। এরপরের ৮ বছর তিনি ম্যাচ পরিচালনা করেছেন প্রাদেশিক ও আঞ্চলিক সব লিগে। এরপর ২০১৫ সালে তিনি দেশটির চতুর্থ সর্বোচ্চ ফুটবল প্রতিযোগিতা সিরি’ডি এর ম্যাচ পরিচালনার সুযোগ পান।

২০১৯ সালে তিনি নারী ইউরোর বাছাইপর্বের ম্যাচ পরিচালনার দায়িত্ব পান। পরের বছর তিনি সিরি’সি এর রেফারিংয়ের সুযোগ পান। সে বছরই তিনি সিরি’বি এর একটি ম্যাচ পরিচালনা করেন। এবার তার পা পড়তে যাচ্ছে সিরি’আর আঙিনায়।

ইতালিয়ান রেফারিদের পরিচালনা কমিটির সভাপতি আলফ্রেদো ত্রেনতালাঙ্গে একে দেখছেন কাপুতির অর্জন হিসেবেই। জানালেন, আর সবার উচিত একে স্বাভাবিকভাবে গ্রহণ করা।

তিনি বলেন, ‘খুবই সুন্দর আর তৃপ্তির মুহূর্ত এটি। তবে এটা দুঃখের বিষয় যে, একজন নারীর উপস্থিতিতে কেউ অবাকও হতে পারে! অবশ্যই, এই ঘটনাটা বিশাল। কারণ সে তার যোগ্যতার ভিত্তিতে এসেছে, কোনো দয়াদাক্ষিণ্যের ফলে নয়।’

শেয়ার করুন .....




© 2018 allnewsagency.com      তত্ত্বাবধানে - মোহা: মনিকুল মশিহুর সজীব
Design & Developed BY ThemesBazar.Com