মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ১০:০৬ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
স্বাস্থ্যবিধি মেনে চাঁপাইনবাবগঞ্জে ঈদের নামাজ অনুষ্ঠিত

স্বাস্থ্যবিধি মেনে চাঁপাইনবাবগঞ্জে ঈদের নামাজ অনুষ্ঠিত

অল নিউজ ডেস্ক : করোনার সংক্রমণ থেকে রক্ষা পেতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চাঁপাইনবাবগঞ্জে ঈদুল আজহার প্রধান জামায়াত সকাল ৭টায় ফকিরপাড়া কেন্দ্রীয় ঈদগাহে অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ ব্যাপারে আগে থেকেই সরকারের পক্ষ থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার কথা বলা হয়েছে।

স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে শনিবার (১ আগস্ট) সকাল ৭টায় ঈদের প্রথম জামাত অনুষ্ঠিত হয়। ইসলামিক ফাউণ্ডেশন সূত্রে জানা যায় চাঁপাইনবাবগঞ্জে প্রায় ২ হাজার মসজিদে হবে পবিত্র ঈদুল আজহার নামাজ।

নামাজ শেষে মোনাজাতে দেশ-জাতির মঙ্গল কামনায় আল্লাহর কাছে প্রার্থনা করা হয়। করোনার কারণে নামাজ শেষে ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা কোলাকুলি থেকে বিরত থাকলেও পরস্পরে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।

এদিকে ইসলামিক ফাউণ্ডেশন চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক আবুল কালাম গতকাল চাঁপাই বার্তাকে তিনি বলেন, ঈদের জামাত হবে এমন সকল মসজিদে কোরবানির বর্জ্য ব্যবস্থাপনা, চামড়া সংরক্ষণ, প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস ও ডেঙ্গু প্রতিরোধে সচেতনতা নিয়ে খুৎবায় বক্তব্য দিতে সংশ্লিষ্ট ইমামদের প্রতি নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

এছাড়াও করোনা ভাইরাস ও ডেঙ্গু হতে রক্ষায় আল্লাহর দরবারে দোয়া করার অনুরোধ জানানো হয়েছে বলেও জানান তিনি।

ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক আরো জানান, মসজিদে নামাজ আদায়ে বেশকিছু নিদের্শনা জারি করা হয়েছে।

এরমধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো- মসজিদে কার্পেট বিছানো যাবে না, নামাজের পূর্বে জীবানুনাশক স্প্রে করতে হবে, মুসল্লিরা জাযনামাজ নিয়ে মসজিদে যাবেন, হ্যান্ড স্যানিটাইজার বা সাবান দিয়ে হাত পরিস্কার করতে হবে, সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে কাতারে দাড়াতে হবে এবং সকলেই মাস্ক ব্যবহার করতে হবে।

তিনি বলেন, যথাযথভাবে কোরবানির পশু জবেহ করা, জাতীয় সম্পদ চামড়া সংগ্রহ ও লবন দিয়ে সংরক্ষণ করার ব্যাপারে গুরুত্ব দিয়ে ঈদের জামাত আলোচনা করতে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে ইমামদের প্রতি। এছাড়াও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও জেলা ইসলামিক ফাউন্ডেশন কয়েক দফায় এসব বিষয়ে ইমামদের সাথে আলোচনা করেছে বলেও জানান তিনি।

শুক্রবারও সৌদি আরবের সাথে মিল রেখে চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ ও সদর উপজেলার ৩ মসজিদে পবিত্র ঈদুল আজহার নামাজ আদায় হয়েছে বলে জানান আবুল কালাম।

তিনি আরো বলেন, ঈদের নামাজ শেষে পরস্পরকে কোলাকুলি ও হাত মেলানো পরিহার করতে অনুরোধ করেছে ধর্ম মন্ত্রণালয়।

করোনা ভাইরাস পরিস্থিতির কারনে মুসল্লিদের জীবনের ঝুঁকি বিবেচনায় নিয়ে এবছর ঈদের নামাজ ঈদগাহে বা খোলা স্থানের পরিবর্তে ঈদের জামাত নিকটস্থ মসজিদে আদায় করার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে। প্রয়োজনে একই মসজিদে একাধিক জামাত অনুষ্ঠিত হবে বলে জানান তিনি।

শেয়ার করুন .....




© 2018 allnewsagency.com      তত্ত্বাবধানে - মোহা: মনিকুল মশিহুর সজীব
Design & Developed BY ThemesBazar.Com