বৃহস্পতিবার, ১৭ Jun ২০২১, ০১:৩১ পূর্বাহ্ন

পদ্মার তলদেশ দিয়ে বিদ্যুৎ পৌঁছাল দুর্গম চরাঞ্চলে

পদ্মার তলদেশ দিয়ে বিদ্যুৎ পৌঁছাল দুর্গম চরাঞ্চলে

নিউজ ডেস্ক : ফরিদপুর সদর উপজেলায় পদ্মা নদীর তলদেশ দিয়ে সাবমেরিন কেবলের মাধ্যমে ফরিদপুরের দুর্গম চরাঞ্চলে বিদ্যুৎ সংযোগ দিচ্ছে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি।

ফরিদপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিসূত্রে জানা গেছে, সদর, সদরপুর ও চরভদ্রাসন উপজেলার চরাঞ্চলের ১০ হাজার পরিবারের মাঝে বিদ্যুৎ পৌঁছে দিতে কাজ চলছে। মোট ১০টি ইউনিয়নে ৮৮টি গ্রামকে আলোকিত করতে বিদ্যুৎ লাইন নির্মাণের কাজ এগিয়ে নিচ্ছে সমিতি।

ফরিদপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির জেনারেল ম্যানেজার মো. আবুল হাসান জানান, ৬৫ কোটি টাকা ব্যয়ে ৪৩৭ কিলোমিটার বিদ্যুৎ লাইন নির্মাণ কাজের ৯৫ শতাংশ শেষ হয়েছে ইতোমধ্যে। সম্প্রতি বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া হয়েছে সদর উপজেলার ডিক্রির চরের ২০১টি পরিবারকে। এ ছাড়া একটি বাণিজ্যিক ও তিনটি দাতব্য প্রতিষ্ঠানে।

এ ব্যাপারে সদর উপজেলার ডিক্রির চর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মেহেদী হাসান ওরফে মিন্টু ফকির জানান, বহুদিন ধরে চরাঞ্চলের মানুষ অন্ধকারের মধ্যে ছিল। আজ ডিজিটাল যুগে সাবমেরিন কেবলের মাধ্যমে প্রথম পর্যায়ে ২০১টি পরিবারকে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া হয়েছে। অন্যদের দেওয়ার কাজ চলছে। গ্রামের মানুষ খুব খুশি।

বিদ্যুৎ সংযোগ পেয়ে আনন্দিত ডিক্রির চরের আব্দুর মতিন জোয়ারদার বলেন, আজ নিজেকে ভাগ্যবান মনে করছি। কখনো ভাবিনি পদ্মার এই চরে বিদ্যুৎ আসবে। আর সেই বিদ্যুৎ দিয়ে বাড়িতে টেলিভিশন, ফ্রিজ, ফ্যান চলবে।

ফরিদপুর জেলা প্রশাসক অতুল সরকার জানান, যোগাযোগের প্রসারের মাধ্যমে মানুষ ও এলাকার উন্নয়ন ঘটে। তেমনি ফরিদপুরের পদ্মা নদীর চরাঞ্চলের মানুষের জন্য সরকার সাবমেরিন কেবলের মাধ্যমে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়ায় পাল্টে যাচ্ছে তাদের জীবন চিত্র। এবার অভুতপূর্ব উন্নয়ন সাধিত হবে চরাঞ্চলে।তিনি বলেন, নদীর তলদেশ দিয়ে সাবমেরিন কেবলের মাধ্যমে ৪৩৭ কিলোমিটার লাইন নির্মিত হয়েছে। ইতোমধ্যেই দুই হাজার পরিবারকে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া হয়েছে। বাকি কাজ সম্পন্ন হলে বিদ্যুতের সুবিধা পাবে আরো ১০ হাজার পরিবার।

শেয়ার করুন .....




© 2018 allnewsagency.com      তত্ত্বাবধানে - মোহা: মনিকুল মশিহুর সজীব
Design & Developed BY ThemesBazar.Com