বুধবার, ০৪ অগাস্ট ২০২১, ০৯:৪২ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
বরিশাল হাসপাতালে  টাকা না দেয়ায় মেলেনি অক্সিজেন, ছটফট করে মারা গেলেন রোগী হেলেনা জাহাঙ্গীরের ২ সহযোগী আটক অ্যাটর্নি জেনারেল কার্যালয়ের সংশ্লিষ্টরা ভ্যাকসিন না নিলে বেতন বন্ধ টিকা বাণিজ্যে অভিযুক্ত ‘হুইপ পোষ্য’কে বরখাস্তের সিদ্ধান্ত হিলিতে তুলা কারখানায় আগুনে প্রায় ১০ লাখ টাকার ক্ষতি গাইবান্ধা গ্রাম পুলিশরা মানহীন সাইকেল গ্রহণে অস্বীকৃতি  অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে প্রথম জয়ে টাইগারদের প্রধানমন্ত্রীর অভিনন্দন জগন্নাথপুরে করোনা উপসর্গে চার ঘণ্টার ব্যবধানে স্বামী-স্ত্রীর মৃত্যু ২৬০০ ডোজ টিকা বিক্রি করেন হুইপের ভাই অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম টি-টোয়েন্টি জয় নিয়ে যা বললেন মাহমুদউল্লাহ
কালীগঞ্জে নির্বাচনী সহিংসতায় আহত ১০, পিস্তলসহ আ’লীগ নেতা গ্রেফতার

কালীগঞ্জে নির্বাচনী সহিংসতায় আহত ১০, পিস্তলসহ আ’লীগ নেতা গ্রেফতার

নিউজ ডেস্ক : গাজীপুরের কালীগঞ্জ উপজেলার জামালপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সভাপতিসহ অন্তত ১০ জন আহত হয়েছেন। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে বিদেশি পিস্তল ও গুলিসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগের এক নেতাকে আটক করেছে পুলিশ।

আটককৃতের নাম মো: আসাদুজ্জামান বরুন (৪০)। তার বাড়ি কালীগঞ্জ উপজেলার জামালপুরে। তিনি উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-দফতর সম্পাদক।

কালীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের আহত সভাপতি এস এম আলমগীর হোসেন ও স্থানীয়রা জানান, রোববার দুপুরে জামালপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদের আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থীর পক্ষে বাড়ির পার্শ্ববর্তী জামালপুর চৌরাস্তা গোল্লারটেক এলাকায় স্থানীয়দের সাথে যুবলীগের সভাপতি এস এম আলমগীর হোসেন ও তার সমর্থকরা কথা বলছিলেন। এ সময় বরুন ও সাইফুল মোড়লের নেতৃত্বে কয়েকজন যুবক সেখানে এসে হামলা চালায় এবং যুবলীগের সভাপতিসহ স্থানীয় লোকজনকে এলোপাথাড়ি মারধর করতে থাকে। এ ঘটনায় হামলাকারীরা কয়েক রাউন্ড গুলি ছুড়ে। খবর পেয়ে আলমগীরকে বাঁচাতে স্বজনরা ঘটনাস্থলে গেলে হামলাকারীরা তাদেরকেও মারধর করলে দু’পক্ষের মাঝে সংঘর্ষ হয়। এতে যুবলীগের সভাপতি এস এম আলমগীর হোসেন (৪২) ও উপজেলা আওয়ামী লীগের যুববিষয়ক সম্পাদক সাইফুল মোড়লসহ (৪০) অন্তত ১০ জন আহত হয়। এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ এলাকাবাসী ধাওয়া করে বরুনকে গুলি ভর্তি পিস্তলসহ আটক করে। পরে তাকে অস্ত্রসহ পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়েছে।

এ দিকে এলাকাবাসী আহত আলমগীর হোসেন (৪২), সাইফুল মোড়ল (৪০), শাহীনা বেগম (৪৮), হেনা বেগম (৩২), নিলয় (২২), নাঈম (২৬), আলম ফরাজী (৩৪) ও দুলাল ফরাজীকে (৪৮) কালীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সসহ বিভিন্ন হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

 

এলাকাবাসী জানায়, জামালপুর ইউপি নির্বাচনে আওয়ামী লীগ, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ, জাকের পার্টি মনোনীত প্রার্থীসহ পাঁচজন প্রার্থী চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এরমধ্যে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়ে মাহবুবুর রহমান ফারুক মাস্টার নৌকা প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। দলের মনোনয়ন না পেয়ে আওয়ামী লীগ নেতা খায়রুল আলম স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মোটরসাইকেল প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। একই পদে নির্বাচনে অংশ নিতে উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি এস এম আলমগীর হোসেন দলীয় মনোনয়ন চেয়ে পাননি। ফলে আওয়ামী লীগের স্থানীয় নেতা-কর্মীদের মাঝে গত কয়েক দিন ধরে উত্তেজনা বিরাজ করছিল।

কালীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এ কে এম মিজানুল হক জানান, পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে দুই রাউন্ড গুলি ভর্তি একটি বিদেশি পিস্তলসহ বরুনকে আহতাবস্থায় আটক করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। পরে সেখান থেকে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থাগ্রহণ প্রক্রিয়াধীণ রয়েছে।

 

গাজীপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (কালীগঞ্জ-কাপাসিয়া সার্কেল) ফারজানা ইয়াসমিন অস্ত্রসহ আওয়ামী লীগ নেতাকে আটকের ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, আটক বরুন আহত। পুলিশ হেফাজতে তিনি চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

শেয়ার করুন .....




© 2018 allnewsagency.com      তত্ত্বাবধানে - মোহা: মনিকুল মশিহুর সজীব
Design & Developed BY ThemesBazar.Com