বুধবার, ০৪ অগাস্ট ২০২১, ০৯:০১ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
বরিশাল হাসপাতালে  টাকা না দেয়ায় মেলেনি অক্সিজেন, ছটফট করে মারা গেলেন রোগী হেলেনা জাহাঙ্গীরের ২ সহযোগী আটক অ্যাটর্নি জেনারেল কার্যালয়ের সংশ্লিষ্টরা ভ্যাকসিন না নিলে বেতন বন্ধ টিকা বাণিজ্যে অভিযুক্ত ‘হুইপ পোষ্য’কে বরখাস্তের সিদ্ধান্ত হিলিতে তুলা কারখানায় আগুনে প্রায় ১০ লাখ টাকার ক্ষতি গাইবান্ধা গ্রাম পুলিশরা মানহীন সাইকেল গ্রহণে অস্বীকৃতি  অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে প্রথম জয়ে টাইগারদের প্রধানমন্ত্রীর অভিনন্দন জগন্নাথপুরে করোনা উপসর্গে চার ঘণ্টার ব্যবধানে স্বামী-স্ত্রীর মৃত্যু ২৬০০ ডোজ টিকা বিক্রি করেন হুইপের ভাই অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম টি-টোয়েন্টি জয় নিয়ে যা বললেন মাহমুদউল্লাহ
১ সপ্তাহ পর বেনাপোল দিয়ে পাথর আমদানি শুরু

১ সপ্তাহ পর বেনাপোল দিয়ে পাথর আমদানি শুরু

নিউজ ডেস্ক :
এক সপ্তাহ বন্ধ থাকার পর আজ সকাল থেকে কাস্টমস ও বন্দরের প্রচেষ্টায় বেনাপোল বন্দর দিয়ে ভারত থেকে পুনরায় পাথর আমদানি শুরু হয়েছে। বেনাপোলে পাথর আমদানি বন্ধ থাকায় ভারতের পেট্রাপোল বন্দরে প্রায় ১ হাজার পাথর বাহী ট্রাক আটকা পড়ে।

 

বেনাপোল সিএন্ডএফ এজেন্ট স্টাফ অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক সাজেদুর রহমান জানান, ভারত থেকে যে সমস্ত পাথরের গাড়ি আমদানি হয়ে আসে সে গুলি বন্দরের বাহিরে আনলোড হতো। পাথর আনলোড করার সময় ভারতীয় ট্রাক ড্রাইভার, হেলপাররা স্বাস্থ্য বিধি না মেনে এদিক ওদিক ঘুরে বেড়ায়। ভারতে করোনার প্রভাব বেশি হওয়ায় ভারতীয় ট্রাক ড্রাইভার হেলপারদের মাধ্যমে করোনার ভারতীয় ভ্যারিয়েন্ট এসব এলাকায় ছড়াতে পারে। এ কারণে পাথরের গাড়ি বেনাপোল বন্দরে প্রবেশে বাধা সৃষ্টি করা হচ্ছিল।

 

এ ছাড়া বেনাপোল পৌর ট্রাক টার্মিনাল ও বেনাপোল ট্রান্সপোর্ট এসোসিয়েশনের ট্রাক প্রতি ১০০ টাকার চাঁদা নেওয়ার প্রতিবাদ করে আসছিল ভারতীয় ব্যবসায়ীরা। এসব কারণে গত বুধবার থেকে বেনাপোল বন্দর দিয়ে পাথর আমদানি বন্ধ হয়ে যায়। এখন থেকে বন্দর এলাকা থেকে ভারতীয় পাথর বোঝাই ট্রাক বাংলাদেশি ড্রাইভাররা নিয়ে ফাঁকা জায়গায় আনলোড করবে এ শর্তে আজ সকাল থেকে পাথর আমদানি শুরু হয়েছে।

 

এ ব্যাপারে বেনাপোলের একাধিক ব্যবসায়ীরা জানিয়েছেন, পাথর বোঝাই ভারতীয় ট্রাক ড্রাইভাররা পাথর আনলোড করতে আমদানি কারকের স্পটে গেলে আগে ট্রান্সপোর্ট এসোসিয়েশনকে গাড়ি প্রতি ১০০ টাকা চাঁদা দেওয়া লাগতো। পৌর ট্রাক টার্মিনাল চালু হওয়ার পর থেকে বেনাপোল পৌরসভা এসব গাড়ি থেকে ১০০ টাকা করে চাঁদা নেওয়ায় বন্ধ হয়ে গেছে ট্রান্সপোর্টের চাঁদা দেওয়া। মূলত এই চাঁদাকে কেন্দ্র করেই পাথর বাহিরে আনলোড নিয়ে বিভিন্ন দপ্তরে নানা কথা বলা হয়েছে। আর এসব জটিলতায় ভারত থেকে পাথর আমদানি বন্ধ হয়ে যায়।

 

ভারতের পেট্রাপোল স্টাফ এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক কার্তিক চন্দ্র জানান, বেনাপোল বন্দর এলাকার দুটি সংস্থার দ্বন্দ্বের কারণে ভারত থেকে পাথর রফতানি গত বুধবার থেকে বন্ধ হয়ে যায়। তবে বেনাপোল কাস্টমস ও বন্দরের উদ্যোগে আজ সকাল থেকে আবার চালু হয়েছে।

 

 

বেনাপোল বন্দরের ডেপুটি পরিচালক মামুন তরফদার জানান, বেনাপোল বন্দরে জায়গা সংকটের কারণে ভারত থেকে আমদানি করা পাথর বন্দর এলাকার পাশে আমদানি কারকের নিজস্ব জায়গায় আনলোড করা হচ্ছিল। ভারতীয় ড্রাইভার হেলপারদের মাধ্যমে করোনা ছড়াতে পারে এজন্য এখন থেকে বন্দর এলাকা হতে ভারতীয় পাথর বোঝাই ট্রাক বাংলাদেশি ড্রাইভাররা নিয়ে আমদানি কারকের জায়গায় আনলোড করবে এ শর্তে পাথর আমদানি শুরু হয়েছে। প্রতিদিন ভারত থেকে ১০০-১২০ ট্রাক পাথর আমদানি হয়ে বেনাপোল বন্দরে আসে।

শেয়ার করুন .....




© 2018 allnewsagency.com      তত্ত্বাবধানে - মোহা: মনিকুল মশিহুর সজীব
Design & Developed BY ThemesBazar.Com