শনিবার, ৩১ Jul ২০২১, ০৫:৫৮ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
দুর্গাপুরে ১৩ ফুটের দুটি গাঁজা গাছসহ কবিরাজ গ্রেপ্তার এনআইডি না থাকলেও বিশেষ প্রক্রিয়ায় করা যাবে  টিকার নিবন্ধন দেশে টিকা নিলো ১ কোটি ২৮ লাখ ৫০ হাজার ৮৩৪ জন মানুষ রাজশাহী-চাঁপাইয়ে আবারও বেড়েছে সংক্রমণ হাতীবান্ধায় চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ব্যবসায়ীকে মারধর ও স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নেয়ার অভিযোগ পাট চাষে কৃষকের মুখে হাসি নওগাঁয় অস্ত্র-গুলিসহ ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার নওগাঁয় চুরির অপবাদে হাত-পা বেঁধে মধ্যযুগীয় কায়দায় শিশুকে নির্যাতন জামিল ব্রিগেডের কার্যক্রম রাজশাহী শহর পেরিয়ে এবার গ্রামে চিকিৎসা, শিক্ষা, অবকাঠামো, মান উন্নয়নে বাংলাদেশ হোমিওপ্যাথি বোর্ডের জন্য ১২ দফা প্রস্তাব
দুর্গাপুরে করোনা লক্ষণ নিয়ে স্বামীর পর স্ত্রীর মৃত্যু

দুর্গাপুরে করোনা লক্ষণ নিয়ে স্বামীর পর স্ত্রীর মৃত্যু

নিউজ ডেস্ক :
নেত্রকোনার দুর্গাপুরের বিরিশিরি এলাকায় করোনাভাইরাসের লক্ষণ নিয়ে স্বামীর মৃত্যুর সাত দিনের মধ্যে করোনা লক্ষণে মারা গেলেন স্ত্রী রোজি বিশ্বাস টুলু (৬৩)।

 

গত সোমবার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে সেখান থেকে ময়মনসিংহ মেডিকেলে নিয়ে যায় পরিবারের লোকজন। দু’দিন থাকার পর পুনরায় বৃহস্পতিবার বাড়ি নিয়ে গেলে মধ্যরাতে মারা যান তিনি।

 

এর আগে গত বৃহস্পতিবার (১৭ জুন) স্বামী চিকিৎসক মুক্তিযোদ্ধা নোয়েল বিশ্বাস (৭৯) করোনার লক্ষণ নিয়ে মৃত্যুবরণ করেন বলে স্থানীয় সূত্রে জানা যায়। স্বামীর মৃত্যুর পর থেকেই অসুস্থ ছিলেন স্ত্রী রোজিও।
এদিকে, নমুনা পরীক্ষায় বৃহস্পতিবার দুপুরে রোজির পুত্র ও পুত্রবধূর শরীরে করোনা পজিটিভের লক্ষণ পাওয়া গেছে বলে নিশ্চিত করেছেন উপজেলা সরকারি হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. তানজিরুল ইসলাম।

 

তিনি জানান, গত সোমবার রোজি বিশ্বাসকে অসুস্থ অবস্থায় দুর্গাপুর হাসপাতালে নিয়ে এলে সাময়িক পরীক্ষা নিরীক্ষার পর উন্নত চিকিৎসার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান তার আত্মীয়রা। ওখানে দুইদিন চিকিৎসা শেষে বৃহস্পতিবার বাড়িতে নিয়ে গেলে অবস্থার অবনতি হওয়ায় রাত ১২টার দিকে তিনি মৃত্যুবরণ করেন।

এদিকে, শুক্রবার সকাল থেকে এ মৃত্যু নিয়ে ওই এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়লে প্রশাসনের পক্ষ থেকে মৃতের পুত্র ও পুত্রবধূকে হোম-কোয়ারেন্টিন দিয়ে বাড়ি লকডাউন করা হয়। পরবর্তী নির্দেশনা না দেয়া পর্যন্ত শুক্রবার থেকে লকডাউন কার্যকর করে স্থানীয় প্রশাসন।

 

গত সাত দিনে উপজেলায় করোনার লক্ষণ নিয়ে চারজনের মৃত্যু হয়েছে এবং আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ৩০ জনের মতো।

 

উল্লেখ্য, গত ২০ জুন একই পরিবারের ৮ জন করোনা আক্রান্ত হওয়ায় ওই দিন রাত থেকেই উপজেলা প্রশাসন স্বাস্থ্যবিধি ও চলাচলে গণবিজ্ঞপ্তি জারি করলেও বাজার-পাড়া মহল্লায় মানুষের মাঝে নেই সচেতনতা।

শেয়ার করুন .....




© 2018 allnewsagency.com      তত্ত্বাবধানে - মোহা: মনিকুল মশিহুর সজীব
Design & Developed BY ThemesBazar.Com