বুধবার, ০৪ অগাস্ট ২০২১, ০১:১২ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
বরিশাল হাসপাতালে  টাকা না দেয়ায় মেলেনি অক্সিজেন, ছটফট করে মারা গেলেন রোগী হেলেনা জাহাঙ্গীরের ২ সহযোগী আটক অ্যাটর্নি জেনারেল কার্যালয়ের সংশ্লিষ্টরা ভ্যাকসিন না নিলে বেতন বন্ধ টিকা বাণিজ্যে অভিযুক্ত ‘হুইপ পোষ্য’কে বরখাস্তের সিদ্ধান্ত হিলিতে তুলা কারখানায় আগুনে প্রায় ১০ লাখ টাকার ক্ষতি গাইবান্ধা গ্রাম পুলিশরা মানহীন সাইকেল গ্রহণে অস্বীকৃতি  অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে প্রথম জয়ে টাইগারদের প্রধানমন্ত্রীর অভিনন্দন জগন্নাথপুরে করোনা উপসর্গে চার ঘণ্টার ব্যবধানে স্বামী-স্ত্রীর মৃত্যু ২৬০০ ডোজ টিকা বিক্রি করেন হুইপের ভাই অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম টি-টোয়েন্টি জয় নিয়ে যা বললেন মাহমুদউল্লাহ
কিমের ওজন খানিকটা কমে যাওয়ায়, কাঁদছে উত্তর কোরিয়ার মানুষ

কিমের ওজন খানিকটা কমে যাওয়ায়, কাঁদছে উত্তর কোরিয়ার মানুষ

নিউজ ডেস্ক :

কয়েকদিন ধরে মনটা ভালো নেই উত্তর কোরিয়ার মানুষের। ভারাক্রান্ত হয়ে এসেছে হৃদয়। কোনওরকমে কান্না চেপে রাখছেন তারা।

 

কিন্তু কারণটা কী? সংবাদসংস্থা রয়টার্সের খবর অনুযায়ী, প্রেসিডেন্ট কিম-জং-উনের ওজন খানিকটা কমে যাওয়ার জল্পনার জেরেই নাকি মন খারাপ হয়ে গিয়েছে উত্তর কোরিয়ার মানুষজনের। এক ব্যক্তি তো রয়টার্সকে বলে ফেলেছেন, ‘আমাদের সম্মানীয় জেনারেল সেক্রেটারিকে ‘রোগা’ দেখে আমাদের হৃদয় ভেঙে গিয়েছে। প্রত্যেকেই বলছেন যে তারা নিজেদের কান্না কোনওক্রমে চেপে রেখেছেন।’

 

রয়টার্সের খবর অনুযায়ী, দীর্ঘ কয়েকমাস জনসমক্ষে না আসার পর উত্তর কোরিয়ার সরকারি সংবাদমাধ্যমে দেখা যায় কিমকে। সেই ফুটেজে দেখা যায়, উত্তর কোরিয়ার শাসকদলের কেন্দ্রীয় কমিটির প্লেনারি সেশন দেখছেন তিনি। তা দেখেই মন ভেঙে গিয়েছে উত্তর কোরিয়াবাসীর।

 

উত্তর কোরিয়ার বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, খুঁটিয়ে দেখলে বোঝা যাবে যে কিম কিছুটা ওজন কমিয়েছেন। মুখ কিছুটা রোগা লাগছিল। এমনিতে ৫ ফুট ৮ ইঞ্চির কিমের ওজন ১৪০ কিলোগ্রাম। একাংশের দাবি, ১০-২০ কেজি ওজন ঝরে গিয়েছে কিমের।

 

উত্তর কোরিয়ার শাসক অবশ্য বরাবরই মদ্যপান ও ধূমপানে আসক্ত। তার পরিবারে আবার হৃদরোগের ইতিহাসও আছে। কিমের বাবা এবং দাদা হৃদরোগে মারা গিয়েছিলেন। এরমধ্যেই গত বছর দীর্ঘদিন জনসমক্ষে আসেননি কিম। এতে জল্পনা ছড়িয়েছিল, তাহলে কি শরীর খারাপ হয়েছে কিমের? সেই জল্পনা উড়িয়ে আবার জনসমক্ষে আসেন কিম। কিন্তু এবারও কিমের ভগ্নস্বাস্থ্য নিয়ে জল্পনা শুরু হয়েছে।

 

যদিও দক্ষিণ কোরিয়ার সিওলের এক বিশেষজ্ঞ জানিয়েছেন, সত্যিই কিমের শরীর খারাপ থাকলে কখনওই জনসমক্ষে আসতেন না। তাই হয়তো বলা যে, উত্তর কোরিয়ার শাসক এখন কিছুটা স্বাস্থ্য সচেতন হয়েছেন।

 

শেয়ার করুন .....




© 2018 allnewsagency.com      তত্ত্বাবধানে - মোহা: মনিকুল মশিহুর সজীব
Design & Developed BY ThemesBazar.Com