শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪, ০৮:০৯ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
ঠাকুরগাঁওয়ে রানীশংকৈলে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মাঠে নেমেছেন সম্ভাব্য প্রার্থীরা ঠাকুরগাঁও জেলা আইন শৃংখলা কমিটির সভা আধুনিক বাংলাদেশের  রুপকার জননেত্রী শেখ হাসিনার সরকার কৃষি বান্ধব সরকার-এমপি গালিব ঠাকুরগাঁওয়ে বালিয়াডাঙ্গীতে প্রাণিসম্পদ প্রদর্শন অনুষ্ঠিত হয়েছে শিবগঞ্জে দু’গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ, আহত ১৫ শিবগঞ্জে প্রাণিসম্পদ প্রদর্শনীর উদ্বোধন-সমাপনী অনুষ্ঠিত রানীশংকৈল ডিগ্রি কলেজ মাঠে মুক্ত মঞ্চের শুভ উদ্বোধন জেলা মহিলা ক্রীড়া সংস্থার পক্ষ থেকে জাতীয় দলের পাঁচ নারী ক্রীড়াবিদদের সংবর্ধনা গোপালগঞ্জে নানান আয়োজনের মধ্য পালিত হলো পহেলা বৈশাখ আমতলীতে ভয়াবহ অগ্নিকান্ড নিহত-১, আহত-২
মূলহোতাসহ ৪৮ ঘন্টার মধ্যে দুই আসামিকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব-১৪

মূলহোতাসহ ৪৮ ঘন্টার মধ্যে দুই আসামিকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব-১৪

 

 

খালেদ খুররম পারভেজ ময়মনসিংহ,

ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা  উপজেলার কলাকান্দা গ্রামের সেনা সদস্যের মা ভিকটিম মাহমুদা খাতুন(৪৫) এর পরিবারের লোকজন এবং বিবাদীরা ভাগিশরীক হওয়ায় তাদের মধ্যে দীর্ঘদিন যাবৎ বসতবাড়ীর জমি নিয়ে দ্বন্দ চলে আসতেছিল। উক্ত দ্বন্দ নিরসনের লক্ষে ঘটনার দিন ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ খ্রি. সকাল ১০.০০ ঘটিকা থেকে ১১.৩০ ঘটিকা পর্যন্ত স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের উপস্থিতিতে সালিস দরবার বসে। কিন্তু উক্ত সালিস দরবারে কোন সমাধান না হওয়ায় যার যার মতো সবাই বাড়ীতে চলে যায়।

ঐদিন দুপুর অনুমান ০১.০০ ঘটিকার সময় সেনা সদস্যের মা ভিকটিম মাহমুদা খাতুন(৪৫) তার বাড়ীর গোয়ালঘর পরিষ্কার করার সময় বিবাদী মাসুদ মিয়া, হাসান, আব্দুর রাজ্জাক, মামুনুর রশিদ, মিরাজ আলী, লিজা আক্তার, লাইলী আক্তার, আনোয়ারা ওরফে আঙ্গুরী বেগমরা হাতে কুড়াল, বাঁশের লঠি ও কাঠের শারক নিয়ে বাদীর গোয়ালঘরের সামনে আসিয়া সেনা সদস্যের মা ভিকটিম মাহমুদা খাতুন(৪৫) কে এলোপাথারী ভাবে মারপিঠ করতে থাকে।

ভিকটিমের ডাক চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে তাদের সামনে বিবাদী মাসুদ মিয়া কুড়াল দিয়ে সেনা সদস্যের মা ভিকটিম মাহমুদা খাতুন (৪৫) এর মাথার মাঝখানে কোপ মারিলে মাথায় প্রচন্ড রক্তক্ষরণ হয় এবং মাথা থেকে মগজ বের হয়ে আসে। ভিকটিমের মৃত্যু নিশ্চিত করার লক্ষে অন্যান্য বিবাদীরা এলোপাথারি বাইরাইয়া ঘটনাস্থল থেকে চলে যায়। পরবর্তীতে, ভিকটিমের স্বজনগন ভিকটিমকে মুমূর্ষ অবস্থায় মুক্তাগাছা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ভিকটিমকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করেন।

সেনা সদস্যের মা ভিকটিম মাহমুদা খাতুন(৪৫)কে উন্নত চিকিৎসার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ভিকটিমকে মৃত ঘোষণা করেন। সেনা সদস্যের মা ভিকটিম মাহমুদা খাতুন(৪৫)কে হত্যার ঘটনায় ময়মনসিংহ জেলার মুক্তাগাছা থানা এলাকাসহ সারাদেশে ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। এ  ঘটনায় নিহতের ছেলে মোঃ আফজাল হোসেন রনি (২৮), পিতা- আব্দুর রউফ, সাং-কলাকান্দা, থানা-মুক্তাগাছা, জেলা-ময়মনসিংহ ০৮(আট) জনকে এজাহারনামীয় আসামী করে ময়মনসিংহ জেলার মুক্তাগাছা থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করে।

যাহার মামলা নং-১৯, তারিখঃ ১৭/০২/২০২৪খ্রি., ধারাঃ ১৪৩/৪৪৭/৩২৩/৩০২/১১৪/৫০৬/৩৪ পেনাল কোড ১৮৬০। উক্ত ঘটনার পর থেকে আসামিরা তাদের নিজ বাড়ি ত্যাগ করে গা ঢাকা দিয়ে ছদ্মবেশে পলাতক ছিল। অধিনায়ক র‌্যাব-১৪, ময়মনসিংহের নির্দেশে র‌্যাব-১৪, বিভিন্ন তথ্য উপাত্ত সংগ্রহ ও বিশ্লেষণের মাধ্যমে সদর ব্যাটালিয়নের অপারেশনস্ অফিসার উপ-পরিচালক মোঃ আনোয়ার হোসেন এর নেতৃত্বে একটি আভিযানিক দল ইং ১৯/০২/২০২৪ ইং তারিখ রাত অনুমান ০৯.০০ ঘটিকায়  ময়মনসিংহ জেলার ভালুকা উপজেলার স্কয়ার মাস্টারবাড়ী এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে হত্যা মামলার  বিবাদী ১। হাসান (৩০), ২। মামুনুর রশিদ (২৮), উভয় পিতা- আব্দুর রাজ্জাক, সাং-কলাকান্দা, থানা-মুক্তাগাছা, জেলা-ময়মনসিংহ’দেরকে  গ্রেফতার করে। ধৃত আসামিদেরকে ময়মনসিংহ জেলার মুক্তাগাছা থানায় হস্তান্তর করে।

শেয়ার করুন .....




© 2018 allnewsagency.com      তত্ত্বাবধানে - মোহা: মনিকুল মশিহুর সজীব
Design & Developed BY ThemesBazar.Com